May 18, 2024

দক্ষিণ ভারতের কিছু ঘোরার জায়গা- Best Places to Visit in North India

.দক্ষিণ ভারতের কিছু ঘোরার জায়গা

ভ্রমণ, নামটা শুনলেই আমাদের মন এক বাঁধ ভাঙ্গা আনন্দে মেতে ওঠে। প্রাত্যহিক রোজনামচার একঘেয়েমি থেকে, মনও চায় হয় পাহাড়ের কোলে, নয় নীল জলরাশির স্পর্শে আরাম বিলাস করতে। কেউ পছন্দ করেন পাহাড়, কেউ আবার জঙ্গল বা সমুদ্র। কিন্তু জানেন কি বন্ধুরা, আজ আপনাদের এমন কিছু সফরের সন্ধান দেবো, যেখানে আপনারা পাহাড় , জঙ্গল বা সমুদ্রের সখ্য একসঙ্গে যাপন করতে পারবেন। সেই সকল স্থান, আমাদের ভারতেই আছে। আর দেরি না করে, চটজলদি বানিয়ে নিন পুজোর সফরনামা।

দক্ষিণ ভারত, এমন এক জায়গা যেখানে পাহাড়ের শান্তির সঙ্গে আপনি পাবেন বন্য শিহরণ কিংবা সামুদ্রিক জলোচ্ছ্বাস। নিশ্চয়ই ভাবছেন, এত বড় জায়গা, কিন্তু আপনি যাবেন কোথায় কোথায়!

সমাধানও করে দিচ্ছি খুব সহজে।

• তামিলনাড়ু 

tamil nadu

তামিনাড়ুর বেশ কয়েকটি জায়গাকে আপনি আপনার সফরনামার সদস্য করে তুলতে পারেন। কলমন্ডল এক্সপ্রেস ধরে রওনা দিন সোজা চেন্নাইয়ের দরবারে। প্রচুর বাঙালি রেস্তোরাঁ পাবেন এখানে। মেরিনা বা এলিয়টের সমুদ্র সৈকতে মনোরম মুহুর্ত যাপন করে, এক রাত কাটিয়ে পরেরদিন রওনা হন কন্যাকুমারীর উদ্দ্যেশ্যে।

বন্ধুরা, আপনারা অনেকেই জানেন, স্বামী বিবেকানন্দ এই স্থানেই সাগর সাঁতরে মাঝ সমুদ্রে গিয়ে পাথরে বসে ধ্যান করেছিলেন। তাঁর নামেই গড়ে ওঠে বিবেকানন্দ রক। কন্যাকুমারী যাবেন, আর বিবেকানন্দ রক যাবেন না, এমন হয়না। তাই কন্যাকুমারীর জন্যও রাখুন হাতে একদিন সময়। মাতা কন্যাকুমারীর দর্শনও হয়ে যাবে এর মধ্যেই। কন্যাকুমারীর পর যেতে পারেন পূদুচেরি। এই সামুদ্রিক শহরটিও বেশ পরিপাটি। ফরাসি উপনিবেশ হিসেবে পুদুচেরির অন্যতম গুরুত্ব আছে। এখানে প্রতি ক্ষেত্রে ফরাসি প্রভাব বেশ প্রকট। পুদুচেরির অরবিন্দ আশ্রম বিশেষ প্রসিদ্ধ। এই আশ্রম যেমন মনোরম একটি দর্শনীয় স্থান, তেমনই এখান থেকে ঋষি অরবিন্দ এবং মা শ্রীমার সম্পর্কিত বিভিন্ন তথ্য আহরণ করা যায়, যা সকল বয়সের মানুষের জন্যই বেশ উপভোগ্য। বন্ধুরা, প্রাতরাশ হোক বা মধ্যাহ্ন ভোজ, বা নৈশ আহার, এই আশ্রমে সব রকম খাওয়া দাওয়ারও সুব্যবস্থা আছে, যা আপনার মনকে তৃপ্তি দেবেই।

তামিলনাড়ুর তালিকায় রাখতে পারেন, বিখ্যাত মীনাক্ষী টেম্পলের উৎসস্থল, মাদুরাইকেও।

• কর্ণাটক 

মহীশূর প্রাসাদ

কর্ণাটক বলতেই প্রথমে আসে ব্যাঙ্গালোর। এই অঞ্চল থেকে ৫৬ কিলোমিটার দূরে শিবগঙ্গা পাহাড় একটি বিশিষ্ট স্থান। এছাড়া সাধুন্দুর্গ পাহাড় এবং মন্দির, নান্দি পাহাড় ব্যাঙ্গালোরের বিখ্যাত পর্যটন কেন্দ্র। ব্যাঙ্গালোর থেকে আপনারা যেতে পারেন মহীশূর। মহীশূর প্রাসাদ হল একটি রোমাঞ্চকর অভিজ্ঞতার উৎস। রাজরাজরার বিলাসবহুল জীবনযাপন দেখে, আপনিও ঘণ্টা কয়েকের জন্য রাজকীয় আমেজে হারিয়ে যেতে বাধ্য।

• কেরালা

Kerala

কেরালা এমন একটি স্বর্গ রাজ্য, যেখানে আপনি সমুদ্র, পাহাড়, জঙ্গল সমস্ত কিছুর রসদ ভরপুর পাবেন। বিদেশী আমেজে পরিপূর্ন কোভালাম এবং ভারকালা বিচ রাখুন আপনার তালিকায়। নানাবিধ সামুদ্রিক মাছের সঙ্গে, ভারতীয় তথা অভারতীয় খাবারের স্বাদ আস্বাদন, আপনার বিদেশ সফরের অপূর্ন মনোবাঞ্ছাকে পূর্ন করবে। পেরীয়ার লেকে জঙ্গল সাফারিও এক নতুন অভিজ্ঞতায় আপনার ভান্ডার ভর্তি করবে। আলেপ্পি তে ব্যাক ওয়াটার রাইড করতে করতে জলজ জনজীবনকে প্রত্যক্ষ করাও হবে এক বেশ নতুন রোমাঞ্চকর অভিজ্ঞতা। এছাড়াও রয়েছে, কেরালার পাহাড়ের রানী, মুন্নার। সবুজ সারি সারি চা বাগানের মাঝে যখন আপনার গাড়ি ছুটবে, সেই শোভা হবে অতি আনন্দদায়ক। বিলুপ্তপ্রায় প্রাণী নীলগিরি থরের সঙ্গেও পরিচিতি ঘটবে মুন্নারে। দক্ষিণ ভারতের সর্বোচ্চ শৃঙ্গ অনাইমুদিকেও দেখা যায় মুন্নার থেকে।

 

পুজোতে ছুটিতে ভ্রমণ এর উপযুক্ত কিছু জায়গা

• অন্ধ্রপ্রদেশ 

আরাকু ভ্যালি

বিখ্যাত পাহাড়ি উপত্যকা আরাকু ভ্যালি অন্ধ্রপ্রদেশের অন্তর্গত। আরাকুর নৈসর্গিক আহ্বান আপনাকে আসক্ত করে তুলবে। অনন্তগীরি পাহাড়, বোরা গুহালু, পদ্মপুরম উদ্ভিদবৈজ্ঞানিক বাগান , উপজাতি জাদুঘর এই অঞ্চলের বিশেষ আকর্ষণ। অন্ধ্র প্রদেশের আরও একটি বিখ্যাত জায়গা হল হায়দ্রাবাদ। বিভিন্ন রকম বিখ্যাত স্থানে সমৃদ্ধ এই অঞ্চল। ঐতিহাসিক গোলকুন্ডা ফোর্ট হোক, বা চারমিনার, সালার জং মিউজিয়াম থেকে রামোজি ফিল্ম সিটি, এই হায়দ্রাবাদেরই অঙ্গ। বন্ধুরা, এমন মানুষ হাতে গোনা যিনি বিরিয়ানি প্রেমী হন না। হায়দ্রাবাদে গেলে, বিরিয়ানির স্বাদ থেকে কিন্তু বঞ্চিত হবেন না।

তো বন্ধুরা, কেমন লাগলো দক্ষিণ ভারতের এই সফর বৃত্তান্ত! আপনাদের মতামত জানাতে ভুলবেন না আমাদের কমেন্টবক্সে। আজ এ পর্যন্তই। 

Facebook Comments Box
BengaliEnglishHindi